Projonmo Kantho logo
About Us | Contuct Us | Privacy Policy
ঢাকা, শনিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৮ , সময়- ৩:২৮ পূর্বাহ্ন
Total Visitor: Projonmo Kantho Media Ltd.
শিরোনাম
আওয়ামী লীগের জনপ্রিয়তা আকাশচুম্বি, জনগণ হৃদয় দিয়ে ভালোবাসে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী | প্রজন্মকণ্ঠ মানুষের ভিড়ের ওপর দিয়ে চলে গেল ট্রেন, ৫০ জন নিহত | প্রজন্মকণ্ঠ তরুণী ও কম বয়সী রোহিঙ্গা মেয়েরা পাচারের শিকার হচ্ছে : জাতিসংঘ যারা বহিষ্কারের ঘোষণা দিয়েছেন তারা বিকল্পধারার কেউ নন : মাহী বি চৌধুরী  আমরা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের স্বাধীনতা এখনও পুরোপুরি অর্জন করতে পারিনি : রাষ্ট্রপ্রতি সর্বত্র মানুষের মঙ্গলের সুযোগ করে দিতে শেখ হাসিনার সরকার কাজ করছে : অর্থমন্ত্রী  সংস্কৃতি অঙ্গনে কালো ছায়া নেমে এলো | প্রজন্মকণ্ঠ চার দিনের সরকারি সফর শেষে দেশে ফিরছেন প্রধানমন্ত্রী আজ | প্রজন্মকণ্ঠ পবিত্র ওমরাহ পালন করেছেন প্রধানমন্ত্রী, দেশবাসীর জন্য দোয়া প্রার্থনা | প্রজন্মকণ্ঠ গিটারের জাদুকরকে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে ভক্তদের কান্না আর ফুলেল শুভেচ্ছা

ভারতে ধৃত বোমা মিজানকে ফেরত চায় বাংলাদেশ সরকার


নিজস্ব প্রতিবেদক, প্রজন্মকণ্ঠ

আপডেট সময়: ১০ আগস্ট ২০১৮ ৯:২৮ পিএম:
ভারতে ধৃত  বোমা মিজানকে ফেরত চায় বাংলাদেশ সরকার

ভারতে ধৃত জামাত উল মুজাহিদীন ইন্ডিয়া (জেএমআই) শাখার আমির (প্রধান) বোমা মিজানকে ফেরত চায় বাংলাদেশ সরকার৷ এমন্টাই জানিয়েছেন,   স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল৷ তিনি বলেন, যেহেতু দুই রাষ্ট্রের মধ্যে বন্দি প্রত্যর্পণ চুক্তি রয়েছে তাই তাকে অবশ্যই ফেরানো হবে৷ বেঙ্গালুরু থেকে এই জঙ্গিকে গ্রেফতার করেছে এন আই এ৷ 

এই বাংলাদেশী জঙ্গিকে ২০১৪ সালে ময়মনসিংহের ত্রিশাল এলাকায় পুলিশের ভ্যান থেকেই ছিনিয়ে নিয়েছিল জেএমবি জঙ্গিরা৷ পরে সীমান্ত পেরিয়ে সে প্রতিবেশী দেশে চলে যায়৷ আর ভারতে বসে বাংলাদেশে নাশকতা ছড়ানোর লক্ষ্যে বিশাল জঙ্গি নেটওয়ার্ক তৈরি করেছিল বোমা মিজান ওরফে কওসর ওরফে জাহিদুল ইসলাম৷ পশ্চিমবঙ্গের বর্ধমান জেলা (বর্তমানে পূর্ব বর্ধমান) সদর শহর বর্ধমানের উপকণ্ঠে খাগড়াগড়ে ছিল তার মূল ঘাঁটি৷ ২১০৪ সালের ২ অক্টোবর দুর্গাপুজোর সময় সেই বাড়িতে বিস্ফোরণ হয়৷ প্রাথমিকভাবে সেটি দুর্ঘটনা মনে হলেও পরে তদন্তে উঠে আসে বাংলাদেশি জঙ্গি সংগঠন জেএমবি সংযোগ৷ তখন থেকেই নিখোঁজ ছিল কওসর ওরফে বোমা মিজান৷

বিভিন্ন নাশকতার মামলায় বোমা মিজানের মাথার দাম বাংলাদেশে পাঁচ লক্ষ টাকা৷ ২০০৭ সালে কক্সবাজার বিপুল পরিমাণ বিস্ফোরক উদ্ধার, ঝিনাইদহে বোমা তৈরির সরঞ্জাম রাখা, চট্টগ্রাম আদালত চত্বরে আত্মঘাতী বোমা হামলা সহ একাধিক মামলায় এই শীর্ষ জঙ্গি নেতার নাম জড়িয়ে৷ তাকে জেরা করতে চাইছেন গোয়েন্দারা৷

বোমা মিজান ভারতে আত্মগোপন করে জেএমবি সংগঠনের ভারতীয় শাখা জেএমআই তৈরি করেচিল৷ সংগঠনের প্রদান হিসেবে দীর্ঘদিন তার কর্মতৎপরতা চালিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের মুর্শিদাবাদ ও নদিয়া জেলায়৷ এছাড়া জঙ্গি নেটওয়ার্ক ছড়িয়েছিল বর্ধমান শহরের খাগড়াগড়ে৷ কিন্তু বিস্ফোরণের ঘটনায় সেই জঙ্গি ডেরা সম্পর্কে বিভিন্ন তথ্য উঠে আসে এনআইএ-র হাতে৷

খাগড়াগড় বিস্ফোরণ মামলায় ভারতের জাতীয় তদন্ত সংস্থা বেঙ্গালুরুর রামনগর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করেছে৷ বুদ্ধগয়ায় বিস্ফোরণ ঘটিয়ে দলাই লামাকে খুন করার পরিকল্পনাও নিয়েছিল বোমা মিজান৷


আপনার মন্তব্য লিখুন...

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ন বেআইনি
Top